লজ্জাহীন আমার মা!

-কীরে খাবি না?
-না!!!! যা রান্না করছ ওইগুলা দিয়া ভাত খাওয়া যায়? তুমি রান্না করছো এই জিনিস দিয়া তোমার ভাত তুমি খাও!

এইরকম কতবার যে ঘটছে তা ১২ দিজিটের ক্যালকুলেটরে ধরবে কি না তা প্রশ্ন সাপেক্ষ। কিন্তু দেখতাম এই মহিলাটা পৃথিবীর সবচেয়ে লজ্জাহীন(!) মহিলা, কিছুক্ষণ পর পরই কানের কাছে আইসা ঘ্যান ঘ্যান করত। যদিও খেতাম কিন্তু তার ঐ অমার্যনীয় ভুলের জন্য জেদটা ধরে রাখতেও ভুল হতো না; আর তার দন্ড হিসেবে হয়তো সেইদিনই নিকৃষ্ট(!) মানের কোনো খাবার তৈরি করে দিতে হত।

খুব বেশি খেলাধুলার কারণে আমাকে এই নারী কম নির্যাতন করে নাই! যার মধ্যে অন্যতম ছিল কিছুক্ষণ বকাঝকা করে ঐ আপরাধের চেয়েও বড় কোনো আপরাধ করতে সাহায্য করা।আমাকে সত্যি বলতে উপদেশ দিত আবার নিজেই মিথ্যা বলত! তখন অবাক হতাম; আরো বেশী অবাক হতাম যখন দেখতাম ঐ মিথ্যাটা বলছে আমার কোনো আদর্শ(!) কাজ বাবার কাছে ঢাকবার জন্য!

এই রমনি কখনো বোধহয় আমার ভাল চাইতো না !, নইলে এস এস সি-র পরে ঢাকায় মানুষের মতো মানুষ(!) হতে আসার পথে বার বার কেন বাঁধা হয়ে দাঁড়াচ্ছিল? আর কাঁন্নার অভিনয় তো আছেই… অথচ আমি কোন কারণে একটু কাঁদলে বলত এতো বড় হইছস লজ্জা লাগে না শুধু শুধু কান্নাকাটি করতে!

এখন আমি মেসে অনেক আনন্দে আছি যখন খুশি তখন খেলতে যেতে পারি, বন্ধুদের সাথে আড্ডা দিতে পারি। খাওয়া-দাওয়া? দেখেন ভাই, খাওয়া দাওয়াটা কিন্তু প্রধান বিষয় না!; সে কিছু একটা হলে চলে যায়!! তাছাড়া, বুয়া তো খুব একটা খারপ রাধে না; হোক না হয় একটুখানি ঝাঁলে অতিরঞ্জিত কিংবা জানান দেক কিছুটা লবনের অনুপস্থিতি। আরে এইসব ঝামেলা না থাকলে তাকে জীবন বলে নাকী..!….?

কিন্তু একটা জিনিসের এখন কোনো তল খুঁজে পেলাম না যখন অনেক রাত পর্যন্ত জেগে থাকি তখন হঠৎ মনে হয় কে যেন আজ সারাদিন আমার নামটা ধরে ডাকে নাই। বডী স্প্রের তীব্র গন্ধে জর্জরিত শার্টটা যখন লজ্জ্বায় মুখ লুকায় তখন কেউ বলে না- তুই এই ফকিরের বেশে কই যাস?
রবির মতো সুন্দর অ আকর্ষিক শব্দ আমার অভিধানে নেই, না আছে নজরুলের ন্যায় বজ্র কন্ঠ! তোমাকে কোনো উপমায় উপমিত করব সেই দুঃসাহসও নেই, শুধু বলতে চাই পৃথিবীর সকল নির্লজ্জ মায়েদের “সালাম”….

______ধ্যাৎ!! চশমার পাওয়ারটা বোধহয় আবার প্রিবর্তন করতে হবে!! 😥

Advertisements

One thought on “লজ্জাহীন আমার মা!

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s